Tuesday, February 7, 2023

জরাজীর্ণ ঘরে মানবেতর জীবন যাপন করছে হারুন 

মোজাম্মেলহক, গোয়ালন্দ:  রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার ছোট ভাকলা ইউনিয়ন ১ নং ওয়ার্ডের টেংরা পাড়া গ্রামে প্যারালাইসিস রোগে আক্রান্ত হয়ে কর্ম ক্ষমতা হারিয়ে কলেজ পড়ুয়া দুই কন্যা সন্তান কে নিয়ে জরাজীর্ণ ঘরে মানবেতর জীবন যাপন করছে হারুন অর রশিদ।

জানাগেছে, আজ থেকে প্রায়ই ২০ বছর আগে গোয়ালন্দ টেক্সটাইল মিলে চাকরী করে পাঁচ সদস্যর সংসার চালাতো হারুন অর রশিদ। সেই টেক্সটাইল মিলটি বন্ধ হয়ে যাওয়ায় তার সংসার চালাতে হিমসিম খেতে হয়। সেই চিন্তায় হঠাৎ করে স্ট্রোক করে প্যারালাইসিস রোগে আক্রান্ত হয়ে ঘরে পড়ে যায়। সেই থেকে তার সংসার চলে মানুষের সহযোগিতায়। কয়েক বছর আগে তার স্ত্রী মারা যায়। বর্তমানে কলেজ পড়ুয়া তিন কন্যা সন্তান নিয়ে জরাজীর্ণ একটি ঘরের মধ্যে খেয়ে না খেয়ে কোন রকম জীবন যাপন করছেন অসহায় হারুন অর রশিদ। সরকারি ভাবে তাদের একটি ঘর দেওয়া হলে তারা ভাল ভাবে বসবাস করতে পারতো। প্রধান মন্ত্রীর দেওয়া উপহারের ঘর প্রত্যাশা করেন অসহায় পরিবারটি।

পান্নু বিশ্বাস বলেন, হারুন অর রশিদের একজন চরম অসহায় মানুষ। প্যারালাইসিস হয়ে ঘরে পড়ে আছে কোন কাজ কর্ম করতে পারে না। আমরা মাঝে মধ্যেই মানুষের কাছ থেকে সহযোগিতা চেয়ে এনে দেই। তার একটু ভিটা মাটি থাকলেও বসবাসের যোগ্য কোন ঘর নেই। সরকারের পক্ষ থেকে যদি একটি ঘর দেওয়া হতো তাহলে ভালভাবে বসবাস করতে পারতো এই পরিবারটি। আজ ১০ বছর ধরে একটি জরাজীর্ণ ঘরের মধ্যে বিয়ের শিয়ানা তিন মেয়ে কে নিয়ে একই ঘরে বসবাস করছে হারুন অর রশিদ । সরকারের কাছে আমাদের দাবি এই অসহায় পরিবারটিকে একটি বসত ঘর দেওয়া হোক।

নাজমা বেগম বলেন, আসলেও এদের মত এত অসহায় মানুষ ছোট ভাকলা ইউনিয়নে কেউ নেই। সরকার এত ঘর দিচ্ছে গরিব মানুষের। একটি ঘর যদি এই অসহায় পরিবারটি কে দেয়। তাহলে দুটি মেয়েসহ প্যারালাইসিস রোগে আক্রান্ত বাবা কোন রকম ভাল ভাবে থাকতে পারবে। তবে মাননীয় প্রধান মন্ত্রীর কাছে আমাদের একটি দাবি এই অসহায় পরিবারটিকে একটি ঘর দেওয়া হোক।

ছোট ভাকলা ইউপি চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেন বলেন, বর্তমানে যে ঘরের তালিকা গুলো ইউ এনও এর কাছে জমা দেওয়া হয়েছে। সে গুলো আশ্রয়ন প্রকল্পের ঘর। পরবর্তীতে যে ঘর আসবে সেখান থেকে যাচাই বাছাই করে তাকে একটি ঘর দেওয়া হবে।

গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. জাকির হোসেন বলেন , ঘরের জন্য ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এর কাছে একটি আবেদন করে রাখতে বলবেন। আমরা যাচাই বাছাই করে তার একটি ঘরের ব্যবস্থা করে দেবো।

সর্বশেষ পোষ্ট

এই ধরনের আরো সংবাদ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here