Wednesday, February 21, 2024

বহরপুরে রোমানা কবিরের কম্বল বিতরণ

মোঃ ইমদাদিল হক রানা : “আসুন সঙ্ঘবদ্ধভাবে শীতার্তদের পাশে দাঁড়াই” এ শ্লোগানে রাজবাড়ির বালিয়াকান্দি উপজেলার বহরপুর ইউনিয়নে বহরপুর বাজারস্থ নিজ বাসভবনে আওয়ামী যুব মহিলা লীগের রাজবাড়ী জেলা শাখার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও বহরপুর হেল্প লাইনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি রোমানা কবিরের নিজস্ব অর্থায়নে সুবিধাবঞ্চিত অসহায় দারিদ্র্য মানুষের মাঝে শীতের কম্বল বিতরণ করা হয়েছে ।

রবিবার (৮ জানুয়ারি) সকালে জেলার বালিয়াকান্দি উপজেলার বহরপুর ইউনিয়নের বহরপুর বাজার এলাকার বহরপুর হেল্প লাইন এর প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও বাংলাদেশ আওয়ামী যুব মহিলা লীগ রাজবাড়ি জেলা শাখার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রোমানা কবিরের একান্ত উদ্দোগে নিজস্ব অর্থায়নে ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকার সুবিধাবঞ্চিত অসহায় শীতার্থ মানুষের হাতে শীতের কম্বল তুলে দেন। এ শীতে তাঁর নিজস্ব অর্থে ২০০ জনের মধ‍্যে শীতের কম্বল তুলে দিতে পেরে তিনি আনন্দিত।

এসময় বহরপুরের সমাজকর্মী ও জেলা যুব মহিলা লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রোমানা কবির বলেন, আজ কয়েকদিন হলো দেশে শীতের মাত্রাটা অনেক বেড়ে গেছে। আবহওয়া দপ্তরের খবর মতে আমাদের এলাকায় শীতের মাত্রা ১৭ থেকে ১৯ ভিগ্রী সেলসিয়াস। এরমধ‍্যে এলাকার অসহায়, সুবিধাবঞ্চিত ছিন্নমূল মানুষ শীতে কষ্ট করছে। তাদের কথা ভেবেই আমি বহরপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকার মানুষের জন‍্য নিজের অর্থে সামান‍্য উপহার সরূপ শীতের কম্বল বিতরণের উদ্দ‍্যোগ নিয়েছি। আজ আমি শীতার্থ মানুষের হাতে সামান‍্যতম উপহার তুলে দিতে পেরে আনন্দিত। দেশে অনেক প্রতিষ্ঠান আছে, সকলেই যদি সাধ‍্যমতো সহযোগিতার হাত বাড়ান তাহলে মানুষ আর শীতে কষ্ট পাবে না। আসুন সবাই মিলেমিশে অসহায় সুবিধাবঞ্চিত মানুষের পাশে দাঁড়াই।

কম্বল পাওয়া অসহায় সুবিধাবঞ্চিত কয়েকজনের মধ‍্যে কথা হয় বহরপুর ইউনিয়নের ইলিশকোল গ্রামের রেহানা বেগম, ডহর পাঁচুরিয়ার ঝুমুর আক্তার, বহরপুর উত্তরপাড়ার ফাতেমা বেগম, নতুনচরের শেফালি খাতুন, বারুগ্রাম আবাসনের মোমেনা বেগম, আড়কান্দির হাজেরা খাতুন, বাবুলতলার মনোয়ারা খাতুন, সমসপুরের নিলুফা ইয়াসমিন, কুবদির লাইলী খাতুন ও ইলিশকোলের পাপিয়া আক্তারের সাথে। তারা বলেন, আমরা দরিদ্রসীমার নিচে বসবাস করি। আমাদের দিন আনা দিন খাওয়া অবস্থায় সংসার চলে। শীতে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছি। শুনেছি সরকার থেকে কম্বল দিয়েছে। কিন্তু আমরা পাইনি। আজ রোমানা কবির আপা তার নিজস্ব অথাআয়নে আমাদেরকে যে কম্বল উপহার দিলেন তা পেয়ে উপকৃত হলাম। আল্লাহ তাঁকে আরও এমন ভালো কাজ করার মানসিকতা প্রদান করেন এটা আমাদের চাওয়া। আজ আমরা অনেক আনন্দিত হয়েছি উপহার পেয়ে।

সর্বশেষ পোষ্ট

এই ধরনের আরো সংবাদ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here