Tuesday, February 7, 2023

‘স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা প্রতিষ্ঠায় তরুণ, নারী ও সুশীল সমাজের ভূমিকা’ শীর্ষক আর্টিকেল নাইনটিনের ওয়েবিনার

প্রেস রিলিজঃ ঢাকা, ২৪ নভেম্বর ২০২২: স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা প্রতিষ্ঠায় প্রয়োজন রাজনৈতিক অঙ্গীকার। বাংলাদেশের জাতীয় মুক্তি সংগ্রামসহ বিভিন্ন ক্রান্তিকালে সুশীল সমাজ তথা নাগরিক সমাজ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে। ’নাগরিক সমাজ সক্রিয় না হলে রাজনৈতিক স্বেচ্ছাচারিতা বেড়ে যায়। তাই রাজনৈতিক অঙ্গীকার বাস্তবায়ন ও রাজনীতিকদের জবাবদিহিতা নিশ্চিতের ক্ষেত্রেও নাগরিক সমাজ ভূমিকা রাখতে পারে। ‘স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা প্রতিষ্ঠায় তরুণ, নারী ও সুশীল সমাজের ভূমিকা’শীর্ষক এক ওয়েবিনারে বক্তারা এসব কথা বলেন।

আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা আর্টিকেল নাইনটিন দক্ষিন এশিয়া আজ (২৪ নভেম্বর ২০২২) এ ওয়েবিনারের আয়োজন করে। আর্টিকেল নাইনটিন দক্ষিণ এশিয়ার আঞ্চলিক পরিচালক ফারুখ ফয়সলের সঞ্চালনায় ওয়েবিনারে আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় সংসদে বগুড়া-৩ আসনের সংসদ সদস্য নুরুল ইসলাম তালুকদার, সাবেক সংসদ সদস্য ও খালেদ মোশাররফ ট্রাস্টের চেয়ারপার্সন মাহজাবিন খালেদ এবং ট্রান্স ইয়ুথ লিডার, নৃত্যশিল্পী ও ব্যাংকার সঞ্জীবনী সুধা। আর্টিকেল নাইনটিনের পরামর্শক ও জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টি অনুষ্ঠানে মূলবক্তব্য উপস্থাপন করেন এবং আর্টিকেল নাইনটিনের সিনিয়র প্রোগ্রাম অফিসার মরিয়ম শেলি সংস্থার কার্যক্রম তুলে ধরেন। ওয়েবিনারে সরকারি-বেসরকারি অংশীজন, রাজনীতিক, জাতীয় ও তৃণমূলে কর্মরত তরুণ সাংবাদিক, লৈঙ্গিক ও নারী অধিকারকর্মী, এনজিও ও নাগরিক সংগঠনের প্রতিনিধিরা অংশ নেন।

মূলবক্তব্যে জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টি বলেন, ‘’তরুণ, নারী ও বিভিন্ন নাগরিক সংগঠন সুশীল সমাজের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ। নির্বাহী বিভাগ থেকে বিচার বিভাগের পৃথকীকরণ, জাতীয় মানবাধিকার কমিশন প্রতিষ্ঠা ও তথ্য অধিকার আইন প্রণয়নে রাজনৈতিক নৈতৃত্বকে বাধ্য করা সুশীল সমাজের বড় অর্জন। রাজনৈতিক নেতৃত্ব যে সকল সমস্যা এড়িয়ে যেতে চায়, সুশীল সমাজ সেই সমস্যার কথা তুলে ধরে এবং সমাধানে সোচ্চার হয়। সুশীল সমাজ সক্রিয় না হলে রাজনৈতিক দলগুলোর স্বেচ্ছাচারিতা বেড়ে যায়।’’

অনুষ্ঠানে বগুড়া-৩ আসনের সংসদ সদস্য নুরুল ইসলাম তালুকদার বলেন, তরুণরা নিজ থেকে কোন পরিবর্তন আনতে পারবে না। তাদের সঠিক পথ প্রদর্শনের দায়িত্ব প্রবীণদের। কিন্তু প্রবীণরা তরুণদের বিভ্রান্ত করছেন। তিনি অভিযোগ করেন, বাংলাদেশের সুশীল সমাজ নিরপেক্ষ নয়। অনেক নাগরিক সংগঠন রাজনৈতিক দলের পক্ষ হয়ে কাজ করেন। তিনি তরুণ, নারী ও সুশীল সমাজকে নিজ নিজ জায়গা থেকে নিরপেক্ষভাবে দেশের জন্য কাজ করার আহ্বান জানান।

সাবেক সংসদ সদস্য মাহজাবিন খালেদ বলেন, আইন প্রণয়ন, সংশোধন ও বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে বাংলাদেশের সুশীল সমাজের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। তবে রাজনীতিকদের সঙ্গে মাঠ পর্যায়ে কাজ করা নাগরিক অধিকারকর্মী ও সংগঠনগুলোর কিছুটা দুরত্ব আছে। এজন্য তিনি নাগরিক অধিকার সংক্রান্ত ইস্যুগুলোর সঙ্গে সংসদ সদস্যদের সংযোগ ঘটানোর জন্য পরামর্শ দেন।

ট্রান্সজেন্ডার নারী ও ব্যাংকার সঞ্জীবনী সুধা বলেন, ’’ট্রান্সজেন্ডার বা হিজড়াদের জন্য ‘তৃতীয় লিঙ্গ’ পরিচয়টি অবমাননাকর। আমরা কীভাবে নিজেদের পরিচয় দিতে চাই, সে বিষয়ে প্রথমে আমাদের সাথে পরামর্শ করতে হবে। আমরাও সুশীল সমাজের অংশ। আমাদেরকে বাদ দিয়ে নয়, অন্তর্ভুক্ত করেই উন্নয়ন পরিকল্পনা করতে হবে।’’

অনুষ্ঠানে আর্টিকেল নাইনটিন দক্ষিণ এশিয়ার আঞ্চলিক পরিচালক ফারুখ ফয়সল বলেন, ’’বাংলাদেশের সুশীল সমাজ বৈচিত্রপূর্ণ। বিভিন্ন ইস্যুতে কাজ করা নাগরিক সংগঠনগুলো পরস্পরের সম্পূরক। কর্মক্ষেত্রে লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যে ভিন্নতা থাকলেও তাদের অভিন্ন অভীষ্ট হলো-স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতাপূর্ণ বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠা যেখানে প্রত্যেক নাগরিকের সম্মান ও সমান অধিকার থাকবে।’’

সম্পাদকের নোটঃ
আর্টিকেল নাইনটিন যুক্তরাজ্যভিত্তিক একটি আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা, যা বিশ্বের বিভিন্ন দেশে কাজ করছে। ১৯৮৭ সালে যুক্তরাজ্যে প্রতিষ্ঠিত এই সংস্থাটি মতপ্রকাশের স্বাধীনতা ও মুক্ত চিন্তা নিশ্চিতে কাজ করে আসছে। সংস্থাটি ২০০৮ সাল থেকে দক্ষিণ এশিয়ায় এর কার্যক্রম শুরু করে।

সর্বশেষ পোষ্ট

এই ধরনের আরো সংবাদ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here